3 chip jus can

নতুন প্রধান বিচারপতির আলোচনায় তিন নাম

(Last Updated On: নভেম্বর ১২, ২০১৭)

বিচারপতি এসকে সিনহা পদত্যাগ করায় শিগগিরই নতুন প্রধান বিচারপতি নিয়োগ হবে। দ্রুত সময়ে এ নিয়োগ সম্পন্ন হবে বলে সূত্র জানিয়েছে। আইনজীবীরা বলছেন, প্রধান বিচারপতির পদ শূন্য থাকতে পারে না। ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি দিয়েও চলবে না। তবে যতক্ষণ পর্যন্ত নতুন প্রধান বিচারপতি নিয়োগ না হচ্ছে, ততক্ষণ ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি হিসেবে আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞা দায়িত্ব পালন করবেন বলে জানিয়েছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। নতুন প্রধান বিচারপতি কে হচ্ছেন, সে বিষয় নিয়ে আইন অঙ্গনে জোর আলোচনা চলছে। তালিকায় আপিল বিভাগের তিন বিচারপতির নাম শোনা যাচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছেন ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞা, বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন ও বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। প্রধান বিচারপতি এসকে সিনহা ছুটিতে যাওয়ার পর সংবিধানের ৯৭ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী রাষ্ট্রপতি আপিল বিভাগে কর্মে প্রবীণতম হওয়ায় বিচারপতি আবদুল ওয়াহ্্হাব মিঞাকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির দায়িত্ব দেন।

সংবিধানের ৯৬ (৪) অনুচ্ছেদ অনুযায়ী বিচারপতি এসকে সিনহা শুক্রবার পদত্যাগপত্র পাঠিয়েছেন। এই অনুচ্ছেদ অনুযায়ী যে কোনো বিচারপতি পদত্যাগপত্র পাঠাতে পারেন। গতকাল সকালে বিচারপতি সিনহার পদত্যাগপত্র বঙ্গভবনে এসে পৌঁছে বলে রাষ্ট্রপতির সচিব গণমাধ্যমকে জানান। এখন প্রধান বিচারপতির পদটি শূন্য হয়েছে। সাংবাদিকদের প্রশ্নে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, ‘পদ শূন্য হয়ে থাকলে রাষ্ট্রপতি সংবিধানের ৯৫ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী প্রধান বিচারপতি নিয়োগের ক্ষমতা যতক্ষণ না প্রয়োগ করবেন, ততক্ষণ পর্যন্ত ৯৭ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী কাজ হবে, কোনো শূন্যতার সৃষ্টি হয়নি।’ জানা গেছে, সংবিধানের ৯৫ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী প্রধান বিচারপতি নিয়োগের বিষয়টি সম্পূর্ণরূপে রাষ্ট্রপতির এখতিয়ার। তিনি কাকে কখন প্রধান বিচারপতি নিয়োগ করবেন, সে ব্যাপারে বাইরের কারো সিদ্ধান্ত দেওয়ার সুযোগ নেই। একজন বিচারপতির সার্বিক বিষয় বিবেচনায় নিয়েই রাষ্ট্রপতি এ নিয়োগ দিয়ে থাকেন। এদিকে প্রধান বিচারপতির পদ শূন্য হওয়ার পর পরই পরবর্তী প্রধান বিচারপতি কে হচ্ছেন, তা নিয়ে আইন অঙ্গনে আলোচনা চলছে। আপিল বিভাগে বর্তমানে পাঁচজন বিচারপতি দায়িত্ব পালন করলেও আলোচনায় তিনজনের নাম শোনা যাচ্ছে। এর মধ্যে বর্তমান ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞার নামটি সবচেয়ে সিনিয়র হিসেবে আলোচনায় আছে। ২ অক্টোবর বিচারপতি সিনহা ছুটিতে যাওয়ার পরের দিন থেকে তিনি ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি হিসেবে দায়িত্বে আছেন।

আপিল বিভাগের কর্মে প্রবীণতম এ বিচারপতি ১৯৮৮-৮৯ এবং ১৯৮৯-৯০ সালে সুপ্রিমকোর্ট আইনজীবী সমিতির নির্বাচিত সম্পাদক ছিলেন। বিচারপতি আবদুল ওয়াহ্্হাব মিয়া ১৯৯৯ সালের ২৪ অক্টোবর হাইকোর্ট বিভাগের অতিরিক্ত বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান। এর পর ২০০১ সালের ২৪ অক্টোবর তিনি একই বিভাগের স্থায়ী বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান। ২০১১ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি আপিল বিভাগের বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান বিচারপতি আবদুল ওয়াহ্্হাব মিঞা। আলোচনায় আছেন আপিল বিভাগের বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন। তিনি আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে ২০০১ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট বিভাগের অতিরিক্ত বিচারপতি হন। আর বিএনপি নেতৃত্বাধীন জোট আমলে ২০০৩ সালের ২২ ফেব্রুয়ারি তিনি একই বিভাগে স্থায়ী বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান। এর পর ২০১১ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারি ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির সঙ্গে আপিল বিভাগের বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান। প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগের আলোচনায় আছে বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকীর নামও। তিনি ২০০৯ সালের ২৫ মার্চ হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি এবং ২০১৩ সালের ৩১ মার্চ আপিল বিভাগের বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ পান।

Print Friendly

Comments

comments

৯ comments

  1. 819232 811206Spot lets start function on this write-up, I truly feel this fabulous site needs an excellent deal far more consideration. Ill apt to be once again to learn far far more, appreciate your that information. 323140

  2. I do agree with all the ideas you have presented in your post. They’re very convincing and will certainly work. Still, the posts are very short for newbies. Could you please extend them a bit from next time? Thanks for the post.

  3. Hi there I am so happy I found out your blog, I really encountered you by error, while I was browsing on Digg for mesothelioma attorney. Nonetheless I am here right now and would simply enjoy to say many thanks for a remarkable post and the overall thrilling website (I furthermore love the theme/design), I do not have sufficient time to look over it completely at the minute however I have saved it and also added the RSS feed, so once I have plenty of time I’ll be returning to browse much more. Please do keep up the great work.

  4. I personally arrived over here via a different web address on websites to watch free movies and considered I may as well read this. I like the things I see thus now I”m following you. Looking towards looking at your blog again.

  5. Does your site have a contact page? I’m having a tough time locating it but, I’d like to send you an e-mail. I’ve got some recommendations for your blog you might be interested in hearing. Either way, great site and I look forward to seeing it expand over time.

  6. I certainly like your blog and find the vast majority of your blogposts to be just what I am searching for. Would you offer other people to post content material for you? I wouldn’t mind writing a story relating to porcelain veneers or perhaps on many of the subjects you’re posting about here. Nice site!

  7. Ive never read something like this just before. So nice to find somebody with some original thoughts on this topic, really thank you for beginning this up. this web-site is something that is essential on the net, somebody having a little originality. valuable job for bringing one thing new to the online!

  8. I’m interested to understand what website system you’re using? I’m experiencing several slight protection challenges with the most recent blog dealing with free new movies and I would love to find one thing far more risk-free. Are there any alternatives?

  9. 164211 863630Real instructive and wonderful anatomical structure of articles , now thats user pleasant (:. 717020

Leave a Reply

Your email address will not be published.