ড.জাফর ইকবালের জন্য ৫ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড

(Last Updated On: মার্চ ১৮, ২০১৮)

ছুরিকাঘাতে আহত ড. জাফর ইকবালকে নিয়ে বিমান বাহিনীর হেলিকপ্টার করে ঢাকা নিয়ে আসা হয়েছে। রোববার রাত ১২টার দিকে তিনি ঢাকায় পৌঁছেন। পরে ঢাকা সেনানিবাসস্থ সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) নেয়া হয়। আর ড.জাফর ইকবালের জন্য পাঁচ সদস্যের মেডিকেল বোর্ড গঠন করেছে সিএমএইচ হাসপাতালের কর্তৃপক্ষ।

এদিকে ড.জাফর ইকবাল দেখতে সিএমএইচ-এর হাসপাতালে গেছেন আইজিপি ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী।

এর আগে শনিবার বিকেলে ৫টার দিকে সিলেটে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপক ড. মুহম্মদ জাফর ইকবালের ওপর হামলা করেন এক যুবক। ধারালো অস্ত্র দিয়ে পেছন দিক থেকে তার মাথায় আঘাত করেন। এতে অধ্যাপক জাফর ইকবালের প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়।

ঘটনার পর হামলাকারীকে আটক করেছে পুলিশ। তার নাম ফজলুল রহমান। বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশে কুমারগাঁওয়ের বাসিন্দা, সে মাদ্রাসার ছাত্র। সিলেট মেট্রোপলিটন পুলিশের মিডিয়া বিভাগ থেকে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

হামলার পর জাফর ইকবালকে আহত অবস্থায় সিলেটের ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের নেয়া হয়। সেখানে তাকে এক্সে ও সিটি স্ক্যান করা হয়। এরপরেই ড.জাফর ইকবালকে উন্নত চিকিৎসা দেয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে বিমানবাহিনীর হেলিকপ্টারে করে ঢাকায় আনার সিদ্ধান্ত হয়।

ড. জাফর ইকবালের ওপর হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে প্রকৃত দোষীদের খুঁজে বের করে আইনের আওতায় আনার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এছাড়া, আওয়ামী লীগ ও বিএনপির পক্ষ থেকেও নিন্দা জানানো হয়েছে। এ ঘটনার প্রতিবাদে বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবন-এ সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ-মিছিল করেছেন ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থীরা। সন্ধ্যায় রাজধানীর শাহবাগেও বিক্ষোভ সমাবেশ ও মশাল মিছিল করেন গণজাগরণ মঞ্চ।

দেশের জনপ্রিয় শিশুসাহিত্যিক এবং কলাম-লেখক জাফর ইকবাল বর্তমানে শাবিপ্রবি’র কম্পিউটার বিজ্ঞান ও প্রকৌশল বিভাগের অধ্যাপক এবং তড়িৎ কৌশল বিভাগের প্রধান হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

Print Friendly

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.