মহানবীকে (স) নিয়ে কটূক্তি করা যাবে না: ইইউ আদালত

(Last Updated On: অক্টোবর ২৭, ২০১৮)

হানবীকে (স) নিয়ে কটূক্তি করা যাবে না: ইইউ আদালত ২০০৯ সালে দুটি প্রকাশ্য সেমিনারে মহানবী হজরত মুহম্মদকে (স) নিয়ে কটূক্তি করেছিলেন মিসেস এ. নামের এক অস্ট্রিয়ান নারী। এ নিয়ে মামলা গড়ায় দেশটির আদালতে। অস্ট্রিয়ার নিম্ন আদালতের সাত বিচারক রায় দেনÑ মহানবীর (স) নামে কোনো কটূক্তি করা যাবে না। গত বৃহস্পতিবার এ সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে মহানবীকে (স) অবমাননা করা মতপ্রকাশের স্বাধীনতার সীমালঙ্ঘন বলে রুল জারি করেছেন ইউরোপিয়ান মানবাধিকার আদালত (ইসিএইচআর)। তুরস্কের গণমাধ্যম আনাদোলু এজেন্সি এ তথ্য জানিয়েছে।
রুলে বলা হয়েছেÑ গঠনমূলক তর্কবিতর্কের ক্ষেত্রে মহানবীকে (স) অবমাননার বিষয়টি অনুমতিযোগ্য সীমার অধীন। কারণ এটা মুসলিমদের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত হানতে পারে এবং ধর্মীয় শান্তিকে ঝুঁকির মুখে ফেলতে পারে। এটি হলো মতপ্রকাশের স্বাধীনতার সীমা লঙ্ঘন।
উল্লেখ্য, মিসেস এ. ২০০৯ সালে ‘বেসিক ইনফরমেশন অন ইসলাম’ শীর্ষক দুটি সেমিনারে মহানবী হজরত মুহম্মদের (স) বিয়ের বিষয়ে কটূক্তি করেন। এ ঘটনায় ২০১১ সালে অস্ট্রিয়ার ভিয়েনার একটি আদালত তার বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণের ভিত্তিতে ৫৪৮ ডলার জরিমানা করেন। পরে তিনি এ রায়ের বিরুদ্ধে দেশের উচ্চ আদালতে আপিল করলেও আগের রায় বহাল থাকে।

Print Friendly, PDF & Email

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.