রাজনীতিতে নেমে এক বছরেই প্রেসিডেন্ট !

(Last Updated On: এপ্রিল ২৯, ২০১৯)

দুর্নীতিবিরোধী ডাক দিয়ে রাজনীতিতে এসেই সাফল্য পেলেন জুজানা কাপুতোভা। স্লোভাকিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয় পেয়েছেন ওই নারী। দেশটির ইতিহাসে প্রথম নারী প্রেসিডেন্ট হতে যাচ্ছেন তিনি।

আজ রোববার ভোটগণনা শেষে দেখা যায়, ক্ষমতাসীন দলের প্রার্থী মারোস সেফকোভিচকে পরাজিত করেছেন ৪৫ বছর বয়স্ক কাপুতোভা। সংবাদমাধ্যম বিবিসি জানিয়েছে, জুজানা কাপুতোভা পেয়েছেন ৫৮ শতাংশ ভোট। অন্যদিকে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মারোস সেফকোভিচ পেয়েছেন ৪২ শতাংশ ভোট।

নির্বাচনের আগে জুজানা কাপুতোভার তেমন কোনো রাজনৈতিক অভিজ্ঞতা ছিল না। তাঁর রাজনৈতিক দল ‘প্রগ্রেসিভ স্লোভাকিয়া’ও দেশটির রাজনীতিতে একদমই নতুন। গত বছর থেকেই আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে দলটি। পেশায় আইনজীবী কাপুতোভা দলটির ভাইস চেয়ারম্যান। ১৪ বছর ধরে দেশটির বর্জ্য ব্যবস্থাপনা-সংক্রান্ত বিষয়ে আইনি লড়াই করছেন তিনি। আর এ কারণেই তিনি ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন।

নতুন দলটির কাছেই কুপোকাত হলো ক্ষমতাসীন ‘সোশ্যাল ডেমোক্রেটিক’ দল।

জ্যান কুসিয়াক নামের এক সাংবাদিক নিহত হওয়ার পর থেকে দেশটির রাজনৈতিক পরিস্থিতি অশান্ত ছিল। গত বছর ২১ ফেব্রুয়ারি নিহত হন ওই সাংবাদিক। দেশটি স্বাধীনতা পাওয়ার পর সাংবাদিক হত্যার ঘটনা এটাই প্রথম।

গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে রাজনীতিকদের সঙ্গে একটি সংঘবদ্ধ সন্ত্রাসী দলের যোগসূত্রের ব্যাপারে তদন্ত করার সময় জ্যান কুসিয়াক নামের ওই সাংবাদিককে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। তাঁর স্ত্রীর পাশেই তাঁকে গুলি করে হত্যা করা হয়।

নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জুজানা কাপুতোভা জানান, সাংবাদিক জ্যান কুসিয়াকের হত্যাকাণ্ডের পরই তিনি প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

৪৫ বছর বয়সী কাপুতোভা দুই সন্তানের জননী। চলতি বছর ১৫ জুন তিনি দেশটির প্রেসিডেন্টের দায়িত্বভার গ্রহণ করবেন

Print Friendly, PDF & Email

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.