সর্বশেষ সংবাদ

 শেখ রাসেলের জন্মদিনে স্বেচ্ছাসেবক লীগের আলোচনা সভা

(Last Updated On: October 19, 2020)

আজ ১৮ অক্টোবর ২০২০ ইং তারিখ বেলা ১১ঃ৩০ মিঃ সময় ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স কাকরাইল ঢাকায়
সংগঠনের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ’র সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু’র সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী জননেতা ওবায়দুল কাদের এমপি। তিনি বলেন সদ্য স্বাধীন বাংলাদেশে শেখ রাসেলের বেড়ে উঠার অপার সম্ভাবনা ছিল! শেখ রাসেল বাবাকে দেখতে না পেয়ে বেগম মুজিব কে বাবা বলে ডাকতেন। দেশী বিদেশি ষড়যন্ত্রকারী নরপিশাচরা ৭৫ এর ১৫ আগস্ট শিশু শেখ রাসেলকে হত্যা করতেও দ্বিধা বোধ করেনি! আমরা যখন শিশু হত্যার বিরুদ্ধে কথা বলি তখন শেখ রাসেলের কথা আমাদের মানসপটে ভেসে উঠে। লক্ষ প্রাণের বিনিময়ে অর্জিত স্বাধীনতার ইতিহাসে জড়িয়ে আছে শেখ রাসেলের নাম! ঘাতকদের অভিসপ্ত বুলেটে তাঁকে হত্যা করলেও শেখ রাসেল আমাদের স্মৃতিতে অম্লান থাকবে। তিনি করোনায় বিপযর্স্থ জনজীবনে অসহায় কর্মহীন মানুষকে খাদ্য সহায়তা, অসহায় রোগীদের অ্যাম্বুলেন্স সেবা,ঘরবন্দী মানুষের চিকিৎসার জন্য টেলি হেলথ সেন্টার স্থাপন সহ নানাবিধ সেবা প্রদান করায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকর্মীদের ধন্যবাদ জানান। আগামীকাল স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণা করা হবে বলে জানান তিনি।
আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম বলেন ১৫ আগস্টের বর্বোরচিত হত্যাকান্ডের মদদদাতা খুনি জিয়া ইনডেমনিটি অধ্যাদেশ জারী করে সংবিধান কে কলংকিত করেছে! জাতির পিতা হত্যার বিচারের পথকে রুদ্ধ করে খুনি জিয়া জগন্য অপরাধ করেছে!তিনি শিশু শেখ রাসেল হত্যার সাথে জড়িত খুনি জিয়ার মরণোত্তর বিচার দাবী করেন। করোনাকালীন সময়ে জাতির পিতার আদর্শের সৈনিক স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকর্মীরা অসহায় মানুষের জন্য দিনরাত অক্লান্ত পরিশ্রম করে মানুষের পাশে থেকেছে! সে কারণে স্বেচ্ছাসেবক লীগের সুনাম বৃদ্ধি পেয়েছে! নেতাকর্মীদের সেবার ব্রত নিয়ে কাজ আহবান জানিয়ে সংগঠনের সুনাম ধরে রাখার আহবান জানান।
গত ১৭ অক্টোবর ময়মনসিংহ গৌরিপুর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ সাধারণ সম্পাদক মাসুদুর রহমান শুভ্র কে কুপিয়ে হত্যার তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করে অবিলম্বে খুনীদের গ্রেপ্তার পূর্বক দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী জানান। আরো বক্তব্য রাখেন মাননীয় যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল।
সংগঠনের সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ বলেন অগনিত মানুষের হৃদয়ে আছেন শেখ রাসেল। বেঁচে থাকলে আজ আওয়ামী লীগের নেতৃত্ব দিতেন।
জননেতা ওবায়দুল কাদের এমপি ও আ ফ ম বাহাউদ্দীন নাছিম যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল কে মূল্যবান সময় দিয়ে আলোচনায় অংশগ্রহণ করায় সংগঠনের পক্ষ থেকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু। কবিতার চয়নে বিনম্র শ্রদ্ধায় শেখ রাসেল স্মরণে বলেন
জন্মছিলে তুমি অপার সম্ভাবনা নিয়ে
ঘাতকরা বাঁচতে দেয়নি তোমায়
তবু্ও তুমি বেঁচে আছো
লক্ষ কোটি হৃদয়ে।
রাসেল আছে সকল মায়ের
দুচোখ ভরা জলে
রাসেল আছে ভোরে -জাগা
শিশুর কোলাহলে।
আলোচনা সভায় সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন ইউনিটের নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

Print Friendly, PDF & Email

Comments

comments

Leave a Reply

Your email address will not be published.